বাংলাদেশিরা নির্মাণ করছে ‘আল-আকসা’ ম’সজিদ দক্ষিণ আফ্রিকায় নিজ উদ্যোগে!

‘আল-আকসা’ ম’সজিদ। বাংলাদেশি মু’সলিম’দের নিজস্ব উদ্যোগে কেনা জমিতে ম’সজিদের নির্মাণ কাজ শুরু হয়েছে। এটি বাংলাদেশে নয় বরং দক্ষিণ আফ্রিকার উত্তর-পশ্চিম প্রদেশের রাজধানী শহর মাফেকিং-এর ইটসোসেং টাউনে।

বাংলাদেশি মু’সলিম’দের উদ্যোগে কেনা এ জমিতে নির্মাণ শুরু হওয়া ম’সজিদের নাম দেয়া হয়েছে আল-আকসা।

৮৫০ বর্গফুট জায়গায় শুধু ম’সজিদটি নির্মাণ সম্পন্ন হবে। যাতে আনুমানিক ব্যয় হবে দেড় মিলিয়ন আফ্রিকান রেন্ড। বাংলাদেশি মুদ্রায় প্রায় ৯০ লাখ টাকা।

নব নির্মিত এ ম’সজিদের ই’মামতি করছেন হাফেজ মাওলানা আব্দুল হালিম। তিনি জানান, ‘বাংলাদেশিদের উদ্যোগেই তৈরি হচ্ছে এ ম’সজিদ। তবে বাংলাদেশিদের পাশাপাশি ভারতীয় এবং পাকিস্তানি মু’সল্লিও এখানে রয়েছে। ম’সজিদ নির্মাণের এ উদ্যোগে সবাই খুশি।

বাংলাদেশিদের উদ্যোগে কেনা জমিতে নির্মিত এ ম’সজিদ হবে দক্ষিণ আফ্রিকার একটি আদর্শ ম’সজিদ। ম’সজিদ নির্মাণ শেষে এখানে ইস’লামের দাওয়াতের কাজও চলবে।

বিনামূল্যে মু’সলিম ছে’লে-মে’য়েদের জন্য কুরআনসহ ইস’লামি শিক্ষার ব্যবস্থা রাখা হবে। এ ম’সজিদের আওতায় মু’সলিম’দের বিনামূল্যে চিকিৎসা, অসহায়দের ত্রাণ বিতরণ ও জনসেবামূলক কাজের ব্যবস্থাও রাখা হবে।

উল্লেখ্য যে, বাংলাদেশি মু’সলিম’রা বিশ্বের অনেক দেশে বসবাস করছেন। নামাজ ও ধ’র্মীয় শিক্ষার গুরুত্ব উপলব্দি করে তারা অনেক দেশেই নিজস্ব উদ্যোগে নির্মাণ করছে ম’সজিদ ও ইস’লামিক সেন্টার। দক্ষিণ আফ্রিকার উত্তর-পশ্চিম প্রদেশের রাজধানী শহর মাফেকিং-এর ইটসোসেং টাউনে নির্মিত ‘আল-আকসা’ ম’সজিদও এ উদ্যোগের আরেকটি সংযোজন।

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *