দুটি পাথর বিক্রি করে একরাতেই ২৮ কোটি টাকার মালিক, কোথায় থেকে পেলেন এই পাথর?

এক রাতের মধ্যেই কোটিপতি হয়ে গেলেন তানজানিয়ার এক খনি শ্রমিক। এক দুই কোটি না প্রায় ২৯ কোটি টাকার মালিক হন এই শ্রমিক।

মোট ১৫ কেজির দুটি পাথর বিক্রি করে এই টাকার মালিক বনে যান তিনি।

মূলত খনি শ্রমিক সানিনিউ লাইজার দুটি পাথর পেয়েছেন যা রত্মপাথর। নাম তানজানিয়াট।

যা তানজানিয়ায় এ পর্যন্ত পাওয়া অতি মূল্যবান ও সবচয়ে বড় পাথর। অলংকার তৈরির কাজে ব্যবহৃত হয় এই পাথর। দেশটির উত্তরাঞ্চলের মিরেরানি পাহাড়ের খনিতে পাওয়া পাথর দুটির একটির ওজন ৯.২৭ কেজি ও আরেকটির ওজন ৫.১ কেজি।

গত বুধবার রত্নপাথর-সংক্রান্ত মন্ত্রণালয়ের কাছে পাথর দুটি ৩৪ লাখ ডলারে (৭.৭ বিলিয়ন তানজানিয়ান শিলিং) বিক্রি করেন লাইজার।

রাতারাতি এভাবে বড়লোক হওয়ার ঘটনাতে কার্যত অবাক হয়েছেন সকলেই।

লাইজার জানায়, এই অর্থ থেকে কিছু পরিমাণ স্কুল তৈরি করার কাজে ব্যয় করবেন।

এছাড়া তার সম্প্রদায়ের মানুষের যাতে কোন অসুবিধা না হয় সে কারণে একটি বড় বাজার তৈরি করবেন। বড় গরু জবাই করে খাওয়াবেন সংশ্লিষ্ট সবাইকে।

jamuna

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *