Breaking News

৬১ লাশ দাফন করা করোনাযোদ্ধা কাউন্সিলর খোরশেদ নিজেই আক্রান্ত

স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হবার আটদিন পর এবার নিজেও করোনায় আক্রান্ত হলেন নারায়ণগঞ্জের করোনাযোদ্ধা সিটি কর্পোরেশনের ১৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মাকছুদুল আলম খোরশেদ।

শনিবার (৩০ মে) দুপুরের পর তার নমুনা পরীক্ষার রিপোর্টে করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে বলে কাউন্সিলর খোরশেদ নিজেই সময় সংবাদকে জানিয়েছেন।

এর আগে তার স্ত্রীও করোনায় আক্রান্ত হয়ে আইসোলেশনে রয়েছেন। শনিবার সন্ধ্যা ছয়টার দিকে ফেসবুকে নিজের ব্যক্তিগত আইডিতে করোনা পজিটিভের বিষয়ে একটি পোস্ট দেন কাউন্সিলর খোরশেদ। এরপর বিষয়টি নজরে এলে সময় নিউজ তার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করে।

ফেসবুকে কাউন্সিলর খোরশেদ লিখেন, ‘আলহামদুলিল্লাহ, হাসবুনিল্লাহি ওয়া নিমাল ওয়াকিল। আমার জন্য আমার আল্লাহই যথেষ্ট। আমি আল্লাহর ইচ্ছায় করোনা পজিটিভ হয়েছি।তাই আগামী ৪ দিন আমি সশরীরে উপস্থিত না থাকলেও আমাদের দাফন, টেলিমেডিসিন, প্লাজমা সংগ্রহ, সবজি বিতরণ, মধ্যবিত্তের জন্য ভর্তুকিমূল্যে খাবার বিক্রি ও ত্রাণ তৎপরতা অব্যাহত থাকবে ইনশাআল্লাহ। আমার টেলিফোন ২৪ ঘন্টা খোলা আছে। যেকোনো প্রয়োজনে আমাকে জানালে আমাদের টিম মেম্বাররা আপনাদের সমস্যা সমাধানে সচেষ্ট হবে, ইনশাআল্লাহ।’

করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার শুরু থেকেই করোনায় আক্রান্ত বা উপসর্গ নিয়ে মৃত্যু হওয়া ব্যক্তিদের দাফন ও সৎকার কাজে স্বেচ্ছায় এগিয়ে এসে দেশ-বিদেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদের শিরোনাম হয়ে ব্যাপক আলোচনায় আসেন নারায়ণগঞ্জের এই জনপ্রতিনিধি। কাউন্সিলর খোরশেদের বীরত্বপূর্ণ কাজ ও মানবসেবায় মুগ্ধ হয়ে নারায়ণগঞ্জ-৫ (সদর-বন্দর) আসনের সংসদ সদস্য ও বিকেএমইএ’র সভাপতি এ কে এম সেলিম ওসমান এক মাস আগে দুঃস্থদের খাদ্য ও অনুদান বিতরণ অনুষ্ঠানে তাকে প্রকাশ্যে “বীর বাহাদুর” উপাধিতে ভূষিত করেন।

যে অবস্থার সময় করোনার হটস্পট হিসেবে চিহ্নিত জেলা নারায়ণগঞ্জে একের পর এক করোনার উপসর্গ নিয়ে মানুষ মারা যাচ্ছিলেন, সে সময় আত্মীয়-স্বজন বা এলাকাবাসী কেউ এগিয়ে না আসায় তাদের লাশ দাফন ও দাহ করতে জেলা প্রশাসনের অনুমতি নিয়ে মানবসেবায় নেমে পড়েন কাউন্সিলর খোরশেদ। কোভিড নাইন্টিন মোকাবেলায় গড়ে তোলেন টিম খোরশেদ থার্টিন নামে ১৩ জনের একটি স্বেচ্ছাসেবক দল।

তার লাশ দাফনের সংবাদ পড়ে জোরাম ভ্যান ক্লাভেরি নামে নেদারল্যোন্ডের এক সংসদ সদস্য ফেসবুকে নিজের ব্যক্তিগত আইডিতে খোরশেদ সম্পর্কে একটি স্ট্যাটাস দেন। তাতে বাংলাদেশের এই জনপ্রতিনির প্রতি প্রশংসা ও মুগ্ধতা প্রকাশসহ খোদ বাংলাদেশকে স্যালুট জানান এই ইউরোপিয়ান রাজনীতিবিদ। পরে দেশি বিদেশি বিভিন্ন গণমাধ্যম খোরশেদ প্রসঙ্গে সংবাদ প্রকাশ করতে শুরু করে।

করোনা পজিটিভ প্রসঙ্গে কাউন্সিলর মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ শনিবার সন্ধ্যায় মুঠোফোনে সময় সংবাদকে জানান, গত ২২ মে তার স্ত্রীর নমুনা পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ আসলে স্ত্রীকে বাড়িতেই আইশোলেশনে রাখেন। স্ত্রীর নমুনা পরীক্ষার দিন একই সাথে নিজের এবং তিন ছেলে মেয়ের পরীক্ষাটাও করিয়ে নেন। তবে স্ত্রী ব্যতী তাদের সবার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে।

খোরশেদ জানান, টানা এক সপ্তাহ স্ত্রীর সংস্পর্শে থেকে সেবাযত্ন করার পাশাপাশি প্রায় প্রতিদিনই লাশ দাফন বা সৎকার কাজ চালিয়ে যেতে থাকেন। স্ত্রী করোনায় আক্রান্ত হলেও একটি দিনের জন্য ঘরে বসে থাকেননি তিনি। শুক্রবার রাত দেড়টায় নগরীর গলাচিপা এলাকার উত্তম কুমার নামে করোনা পজিটিভ হওয়া ৬১তম মৃত ব্যক্তির দাহ সম্পন্ন করেন। তবে পরিবারের সবার অনুরোধে ২৮ মে দ্বিতীয়বারের মতো নিজের নমুনা পরীক্ষা করতে দেন। ৩০ মে (শনিবার) দুপুরের পর পরীক্ষার রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে বলে জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ও সংশ্লিষ্ট হাসপাতাল থেকে তাকে জানানো হয়। তবে তিনি কোনোভাবেই ভেঙ্গে পড়েন নি।

মানবতার দৃষ্টান্ত সৃষ্টিকারী নারায়ণগঞ্জের এই কাউন্সিলর তার পরবর্তী পদক্ষেপ প্রসঙ্গে সময় সংবাদকে বলেন, আমি আক্রান্ত হয়েছি বলে আমার কোনো কাজ বন্ধ থাকবে না। সব কার্যক্রম আগের মতোই স্বাভাবিকভাবে চলবে। আমার টিম সক্রিয় থাকবে, আমার ফোন চালু থাকবে। টিমের সাথে আমার সার্বক্ষণিক যোগাযোগ থাকবে। করোনায় আক্রান্ত হয়ে যে কেউ মারা গেলে আমার সাথে যোগাযোগ করলে আমি দাফন, কাফন, সৎকারের ব্যবস্থা করবো। এছাড়া টেলিমেডিসিন সরবরাহ, প্লাজমা সংগ্রহ, সবজি বিতরণ, মধ্যবিত্তের জন্য ভর্তুকিমূল্যে খাবার বিক্রি ও ত্রাণ সহায়তার কাজ অব্যাহত থাকবে।

তিনি বলেন, যে কেউ যে কোন সময় আমার মোবাইল ফোনে কল দিয়ে আমার সাথে যোগাযোগ করতে পারবে। আমি যতোক্ষণ পর্যন্ত বেঁচে আছি করোনা যুদ্ধ থেকে এক পা ও পিছু হটবো না। জীবনের শেষ নিঃশ্বাস পর্যন্ত আমি এই যুদ্ধ চালিয়ে যাবো। সবশেষে নিজের সুস্থতার জন্য সবার কাছে দোয় কামনা করেন নারায়ণগঞ্জবাসীর হৃদয় জয় করা এই জনপ্রতিনিধি কাউন্সিলর মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ।

উল্লেখ্য, ব্যক্তিগত ভালো ইমেজ ও জনসেবায় আত্মনিয়োগ করে ঈর্ষণীয় জনপ্রিয়তা অর্জন করে মাকছুদুল আলম খন্দকার খোরশেদ নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ১৩ নম্বর ওয়ার্ডে টানা তৃতীয়বারের মতো কাউন্সিলর হিসেবে জনপ্রতিনিধিত্ব করছেন।
somoynews

About admin

Check Also

ঘরের বাইরে মাস্ক পরিধানের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় দফা বিস্তার প্রতিরোধে ঘরের বাইরে মাস্ক পরিধানের জন্য জনসাধারণের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *