গাংনীতে বৃদ্ধ মুয়াজ্জিনকে কু’পি’য়ে হ’ত্যা:

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলার সাহেবনগর গ্রামে ছহির উদ্দীন (৭০)

নামের এক বৃ’দ্ধকে নৃ’শংস’ভা’বে কু’পি’য়ে হ’ত্যা’ করা হয়েছে। আজ বুধবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে গ্রামের মাদ্রাসা ও কবর’স্থা’নের পাশে মুখোশধারী দুজন তাঁ’কে কু’পি’য়ে ‘হ’ত্যা’ করে পালিয়ে যায় বলে প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছে পু’লিশ।

তবে হ’ত্যা’কা’ণ্ডে’র কারণ ও জ’ড়িত’দের সম্পর্কে এখনো কোনো ত’থ্য পায়নি ‘পু’লিশ ও গ্রা’মবাসী।

নি’হ’ত ছহির উদ্দীন সাহেবনগর গ্রামের বাসিন্দা। তিনি মাদ্রাসা,

গোর’স্তা’ন ও ঈদ’গা’হের দেখভালের কাজ করতেন। একই সঙ্গে মাদ্রাসার পাশের মসজিদে মুয়াজ্জিন হিসেবে কাজ করতেন।

স্থানীয় ও পু’লিশ সূত্রে জানা গেছে, প্রতিদিনের মতো আজ সকালে গো’রস্তানের পাশে কাজ করছিলেন বৃদ্ধ ছহির উদ্দীন।

এ সময় মুখে কালো মুখোশ পরা দুজন ধারালো অ’স্ত্র’ দিয়ে তাঁকে এলোপাতাড়ি কু’পিয়ে পালিয়ে যায়। খবর পেয়ে গ্রামের মানুষ জড়ো হয়ে দু’র্বৃত্ত’দের খুঁ’জতে বের হলেও তাদের কোনো হদিস মেলেনি। ঘটনাস্থলে পুলিশের একটি দল পৌঁছে ম’রদে’হ উদ্ধার করে।

গাংনী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওবাইদুর রহমান বলেন, বৃদ্ধের মাথা, বুক, পিঠ, হাত, পাসহ শরীরের বিভিন্নভাবে ধারালো অ’স্ত্রে’র কো’প রয়েছে।

ম’রদে’হ ম’য়না’তদন্তের পাশাপাশি হ’ত্যা’কা’রী’দের খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। তবে হ’ত্যা’কা’ণ্ডের কা’রণ এখনো উদঘাটন করা সম্ভব হয়নি।
ntvbd

Sharing is caring!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *